সরাইলে চোঁখে পড়ে না বাবুই পাখির অট্রালিকা

মোঃ তাসলিম উদ্দিন সরাইল, বি-বাড়িয়া: বি-বাড়িয়ার সরাইলে চোঁখে পড়ে না অাগের মত বয়ন শিল্পীর স্থপতি বাবুই  পাখির নিজ হাতে তৈরী অট্রালিকা মোর কাঁচা ঘর! দিন দিন হারিয়ে যাচ্ছে প্রকৃতির বিরুদ্ধে মানুষের অাগ্রাসী কায্যর্কলাপের বিরুপ প্রভাবেই অাজ বাবুই পাখি ও তার বাসা হারিয়ে যেতে বসেছে।এখনকার শিক্ষার্থীরা বাবুইশিল্পের অলৌকিক কথা শুধুমাত্র পাঠ্যপুস্তকেরকবিতা পড়েই জানতে পারছে। চোঁখে পরেনা বাবুইপাখি ও তার নিজের তৈরী দৃষ্টিনন্দন সেই ছোট্র বাসা তৈরির নৈসর্গিক দৃশ্য। কবি রজনীকান্ত সেনের কবিতায়, নিজ হাতে তৈরি অট্রালিকা মোর কাঁচা ঘর! বাবুই পাখিরেডাকি,বলিছে ঘরে থেকে কর শিল্পের,অামি থাকিমহাসুখে অট্রালিকা পরে তুমি কত কষ্ট পাও রোধ,বৃষ্টির,। বাবুই কহে,”সন্দেহ কি তাই? কষ্ট পাই,তবু থাকি নিজের বাসায়। পাকা হোক,তবু ভাই, পরের ও বাসা, নিজ হাতে মোর কাঁচা ঘর, খাসা। সমাজকর্মী  মোঃ অারিফুল ইসলাম সুমন জানান,খড়,তাল পাতা, ঝাউ ও কাশবনের লতাপাতা দিয়ে বাবুই পাখি উঁচু তালগাছে বাসা বাঁধে।সেই বাসা দেখতে যেমন অাকর্ষনীয়, তেমনি মজবুত।ঝড়েও তাদের বাসা পরে যেতনা।বাবুই পাখির শক্ত বুননের এ বাসাটি। হারিয়ে যাচ্ছে প্রকৃতির বয়ন শিল্প, স্থপতি সামাজিক বন্ধনের কারিগর বাবুই পাখি ও তার বাসা।
এক সময় বাংলাদেশের সকল উপজেলার বিভিন্ন গ্রামাঞ্চলে সারি সারি উঁচু তালগাছে বাবুই পাখির দৃষ্টিনন্দন বাসা দেখা যেত।এখন তা অার সচারাচর চোখে পড়ে না। কালের বিবর্তনে ও পরিবেশ বিপর্যয়ের কারণে সেই দৃষ্টি ভোলানো পাখিটিকেও তার নিজের তৈরী বাসা যা প্রাকৃতিক সৌন্দর্য্যকে অারও ফুটি য়ে তুলতে, তা অাজ অামরা হারাতে বসেছি। বাবুই পাখির সঙ্গী পছন্দ হলে স্ত্রী বাবুইকে সাথীবানানোর জন্য নানাভাবে ভাব-ভালবাসা নিবেদন করে এরা। বাসা তৈরির কাজ অর্ধেক হলে কান্ঙিক্ষত স্ত্রী বাবুইকে সে বাসা দেখায়। বাসা পছন্দ হলে কেবল সম্পর্ক গড়ে।স্ত্রী বাবুই পাখির বাসা পছন্দ হলে বাকী কাজ শেষ করতেপুরুষ বাবুই পাখির সময় লাগে চারদিন। স্ত্রী বাবুই পাখির প্রেরণা পেয়ে পুরুষ বাবুই মনের অানন্দে শিল্পসম্মত ও নিপুণ ভাবে বিরামহীন কাজ করে বাসা তৈরির কাজ শেষ করে।অনেকে জানান, প্রকৃতির বয়ন শিল্পী বাবুই পাখিও তার অপরুপ বাসা অার চোখে পরেনা।এরা অারো জানান, প্রকৃতির বিরুদ্ধে বিরুপ অাচরণের কারণে অাজ বাবুই পাখি ও তার বাসা হারিয়ে যেতে বসেছে। তবে দেশের কিছু কিছু স্থানে এখনো চোঁখে পড়ে এ দৃষ্টিনন্দন বাবুই পাখির বাসা

Share Button